স্বামীর সামনে গণধর্ষণের শিকার তরুণী

চট্টগ্রামের বায়েজিদ বোস্তামি থানার এক ব্যস্ততম এলাকা অক্সিজেন মোড়ে স্বামীএ সামনে গনধর্ষণ করা হয় তার স্ত্রীকে। এই পর্যন্ত ধর্ষকের ৫ জনের মিওধ্যে ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। স্বামীর সামনে গণধর্ষণের শিকার তরুণী নিজেই পুলিশকে তার ধর্ষণের করুন ঘটনা বর্ননা করেছেন।

 

স্বামীর সামনে গণধর্ষণের শিকার তরুণী
স্বামীর সামনে গণধর্ষণের শিকার তরুণী

ধর্ষনের ঘটনাটি ঘটে গতকাল শনিবার রাত ১০ টার পরে। নির্যাতিত নারীটি একজন পোষাক মর্মী এবং তার জামাই একটি দোকানে চাকুরী করেন। সেদিন রাতে তারা চট্টগ্রামের ওই অক্সিজেন মোড় দিয়ে যাচ্ছিলেন। পথের মধ্যেই তাদেরকে থামায় সেই মোড়ে অবস্থানরত কয়েকজন বেবিট্যাক্সি ড্রাইভার। তারা তাদের দুইজনকে ব্লাকমেইল করার চেষ্টা করে। তারা নিজেদেরকে স্বামী স্ত্রী পরিচয় দিলেও তারা তা অস্বীকার করে তাদেরকে অবৈঢ মেলামেশার দায়ে থানায় দেয়ার ভয় দেখায়। তারপর থানায় যাওয়ার নাম করে নির্যাতিতার স্বামীকে গাড়িতে উঠিয়ে তার হাত পা বেধে ফেলা হয় এরপর নির্যাতিতাকে পাশের এক কলোনিতে নিয়ে গণধর্ষণ করে ৫ জন। ঘটনাটি রাত ১০ টা থেকে ২ টা পর্যন্ত চলতে থাকে তারপর নির্যাতিতা ৯৯৯ এ ফোন করে পুলিশের সহায়তা চাইলে সাথে সাথে পুলিশ এসে নারিকে ও তার স্বামীকে উদ্ধার করে নিয়ে যায়।

চট্টগ্রামের তরুণীর ধর্ষণের খবর
স্বামীর সামনে গণধর্ষণের শিকার তরুণী

তারপর তাদেরকে উদ্ধার করে পুলিশ নিয়ে যায় নিকটস্থ হাসপাতালে। সেখান থেকে অক্সিজেন মোর এলাকার থানার ওসি ভিক্টিমের জবানবন্দী নিয়ে আসামিদের শনাক্ত করে তাদেরকে গ্রেফতার করার প্রতিশ্রুতি দেয় এবং সেদিনই ৫ জন ধর্ষকের মধ্যে ৪ জনকে আটক করে পুলিশ। আটককৃতরা পুলিশের কাছে ধর্ষণের ঘটনা শিকার করে এবং সে নারিকে পুলিশ বিচারের সম্পূর্ণ আশ্বাস দেয়। 

 

আমাদের সমাজে প্রতিনিয়তই নারীরা গণধর্ষনের শিকার। তবে "স্বামীর সামনে গণধর্ষণের শিকার তরুণী" এই ধরনের খবর শরীরে কাটা দেয়ার মত। স্বামীর সামনে স্ত্রীকে এই রকম অত্যাচার করলে তা যে কি পরিমাণ পীরাদায়ক তা ভিক্টিম ছাড়া কেউই বুঝবেনা। স্বামীর সামনে স্ত্রীকে নিররাতন করা হচ্ছে কিন্তু স্বামী কিছুই করতে পারছেনা এর চাইতে জঘণ্য ঘটনা আর কিইবা হতে পারে। আমাদের সমাজের কিছু বিকৃত চরিত্রের মানুশের জন্য আজকে আমার আপনার মা, বোনেরা নিরাপদ না। প্রতিদিনই কেউ না কেউ ধর্ষণ হচ্ছে আমাদের দেশে। কিছু মানুশের টা মিডিয়ায় আসছে যাদেরকে আমরা দেখি আর বেশিরভাগ ধর্ষণের ঘটনা আরালেই থেকে যাচ্ছে।

 

চট্টগ্রামের তরুণীর গণধর্ষণের খবর
স্বামীর সামনে গণধর্ষণের শিকার তরুণী

বিশেষ করে বিত্তশালীরা এই ধরনের অপরাধ করে তাদের ক্ষমতার জোড়ে অপরাধ কে মাটিচাপা দিয়ে যাচ্ছে। আবার এইদিকে এই লজ্জা সহ্য করতে না পেরে দিনের পর দিন নারী বেছে নিচ্ছে আত্মহত্যার পথ। এই ধরনের নরপশুর হাত থেকে রেহাই পাচ্ছেনা ৫ বছরের শিশুও। তাদের কোন বিবেক নেই। তাদের কাছে তাদের শারীরিক ক্ষুধাই মুখ্য। একটি নারীর জীবনের সবচাইতে বড় সম্পদই হচ্ছে তার ইজ্জত। এটাই যখন নশট করে দেয়া হয় তখন আর বাচার আসা তেমন থাকেনা। তাই এই ধরনের জঘণ্য ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে দোষীদের সর্বোচ্চ শাস্তি ফাসি দাবি করছি।

 

 ৩০ আগস্ট ২০২০

প্রতিবেদকঃ সাফিন আফনান

 

Post a Comment

0 Comments